দুর্নীতির বিরুদ্ধে জাককানইবিতে শিক্ষক সমিতির মানববন্ধন

জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রশাসনিক ভবনের নিচে (মঙ্গলবার) সকাল ১১টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতির আয়োজনে সাধারণ শিক্ষক-শিক্ষার্থী,কর্মকর্তা-কর্মচারীদের নিয়ে মানববন্ধন করেছে বিশ্ববিদ্যালয় পরিবার।

মানববন্ধনে সকল দূর্নীতির বিরুদ্ধে সুষ্ঠু তদন্ত ও যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ এবং দ্রুত যোগ্য উপাচার্য নিয়োগের প্রত্যাশার কথা জানান তারা।

উক্ত মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, বিশ্ববিদ্যালকে সুন্দর ও শিক্ষার্থীবান্ধব পরিবেশ প্রতিষ্ঠায় বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতি কার্যকর ও ইতিবাচক ভূমিকা রেখে চলেছে। উক্ত অনুষ্ঠানে শিক্ষার্থীদের দাবি, শুধু শিক্ষক সমিতি নয়, সবার সাথে একাত্মতা প্রকাশ করে বিশ্ববিদ্যালয়ের সাধারণ ছাত্র-শিক্ষক থেকে শুরু করে কর্মকর্তা-কর্মচারী এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের অন্যান্য সংগঠনও দুর্নীতি ও অনিয়মের বিরুদ্ধে আরও শক্ত অবস্থান নেবে। একই সঙ্গে স্বচ্ছতা, জবাবদিহি, সুন্দর নৈতিকতা সম্পন্ন নতুন উপাচার্যের নিয়োগের মাধ্যমে বিশ্ববিদ্যালয়ের সুন্দর ভবিষ্যত দেখতে চাই।

গনমাধ্যমে প্রকাশিত ও প্রচারিত দুর্নীতিকারী জাককানইবি’র সাবেক উপাচার্য প্রফেসর ড. মোহীত উল আলম এবং ট্রেজারার স্বঘোষিত দুর্নীতিবাজ ও বর্তমান দায়িত্বপ্রাপ্ত উপাচার্যের বিরুদ্ধে আনীত সকল দুর্নীতির বিরুদ্ধে মানববন্ধনে উপস্থিত ছিলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক মোঃ শফিকুল ইসলাম, বাংলা বিভাগের অধ্যাপক মোঃ সাহাবউদ্দিন বাদল, ড. মোঃ মাহবুব হোসেন, ফিন্যান্স এন্ড ব্যাংকিং বিভাগের সোহেল রানা, বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক ড. মোঃ জাহিদুল কবীর, অধ্যাপক রশিদুন নবী, ফোকলোর বিভাগের বিভাগীয় প্রধান ড. মোঃ সাইফুল ইসলাম, চারুকলা বিভাগের বিভাগীয় প্রধান নগরবাসী বর্মন, নাট্যকলা বিভাগের সহকারী অধ্যাপক রুহুল আমীন, নজরুল ইসলাম, প্রভাষক নুসরাত শারমিন তানিয়া, সহকারী অধ্যাপক রেজুয়ান আহমেদ শুভ্র, কম্পিউটার সায়েন্স এন্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের বিভাগীয় প্রধান প্রকৌশলী এ. এইচ. এম. কামাল, ইংরেজী বিভাগের সহকারী অধ্যাপক উম্মে ফারহানা, লোক প্রশাসন বিভাগের সহকারী অধ্যাপক সঞ্জয় কুমার মূখার্জী বিভিন্ন বিভাগের প্রভাষক, কর্মকর্তা-কর্মচারী পরিষদের নেতা কর্মীরা।

বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা ভাষা ও সাহিত্যে বিভাগের অধ্যাপক মোঃ সাহাবউদ্দিন বাদল বলেন, দেশের উন্নয়নে সবচেয়ে বড় বাধা দুর্নীতি। কবি নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ের নানা দুর্নীতির বিরুদ্ধে আজ জাককানইবি পরিবার দুর্নীতিবাজদের বিরুদ্ধে শক্ত অবস্থানে দাঁড়িয়েছে।

শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক শফিকুল ইসলাম বলেন, আমরা শিক্ষক সমিতির ব্যানারে আজ সাধারণ শিক্ষার্থী, কর্মকর্তা-কর্মচারীদের তথা জাককানইবি পরিবারকে সাথে নিয়ে সাবেক উপাচার্য বর্তমান উপাচার্য (দায়িত্বপ্রাপ্ত), এবং তাঁর সহযোগী সকল দূর্নীতিবাজদের বিরুদ্ধে আন্দোলনে নেমেছি। এসব অনিয়ম, দুর্নীতির সুষ্ঠ তদন্ত সাপেক্ষে যথাযথ ব্যবস্থা না নিলে সামনে আরো বড় ধরনের কর্মসূচী গ্রহণ করা হবে ।

অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন, শিক্ষক সমিতির যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক নাট্যকলা বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মোঃ আল জাবির।

এদিকে দুর্নীতির বিরুদ্ধে জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের ট্রেজারার (ভারপ্রাপ্ত ভিসি) এ এম এম শামসুর রহমানের পদত্যাগের দাবি এবং নাট্যকলা বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মোহাম্মদ রুহুল আমীনকে প্রদত্ত কারণ দর্শানো নোটিশ প্রত্যাহারের দাবিতে দুর্নীতি বিরোধী নাটিকা, বিক্ষোভ মিছিল ও কুশপুত্তলিকা দাহ করেছে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা।